কাটবে না চার্জ,ইউপিআই গ্রাহকদের জন্য স্বস্তির খবর দিলো কেন্দ্র।

কিছু মাস আগেই ইউপিআই পেমেন্ট সার্ভিসের ক্ষেত্রে চার্জ কাটবে বলে খবর প্রকাশ করে ভারতের রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া (Reserve Bank Of India)। যার জেরে ইউপিআই বা অনলাইন পেমেন্ট ব্যবহারকারীদের মাথায় হাত পড়ে যায়। এই খবর প্রকাশ পাওয়ার পরে অনেকেই বিশেষ করে ছোট ব্যাবসায়ীরা অনলাইনের পেমেন্ট বন্ধ করার কথা চিন্তা ভাবনা শুরু করে,শুরু হয় বিতর্কও। অনেকেই সোশ্যাল মিডিয়াতে এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেন। ফলে সরকার বিষয়টিকে স্থগিত করে এবং পরবর্তিতে সিদ্ধান্ত বদল করে ইউপিআই (UPI Transaction Charges In India) পেমেন্টের উপর থেকে সার্ভিস চার্জ তুলে নেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করে।

ভারতের মিনিস্টার অফ ফাইন্যান্স একটি টুইটের মাধ্যমে জানায় – “ইউপিআই হল এমন একটি ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম যা জনসাধারণের জন্য অত্যন্ত সুবিধাজনক এবং অর্থনীতিতে এর একটি বড় অবদান রয়েছে। ইউপিআই পেমেন্ট পরিষেবার জন্য কোনও চার্জ বিবেচনা করা হচ্ছে না। পরিষেবা প্রদানকারীদের জন্য খরচ পুনরুদ্ধারের জন্য অন্যান্য বিকল্পগুলি বিবেচনা করা হবে”।

(আরও পড়ুন : ডিজিটাল লেনদেন বাড়াতে Incentive Scheme নিয়ে এল কেন্দ্র;ভীম ইউপিআই,রূপে ডেবিট কার্ডে মিলবে বিশেষ সুবিধা)

তবে এই ইউপিআই (Unified Payment Interface) ব্যাবহারের ক্ষেত্রে কিছু নিয়মকানুন আছে যা গ্রাহকদের মেনে চলতে হয়। ভারতের করোনা মহামারীর সময় লকডাউনের ফলে ইউপিআই এর ব্যবহার ক্রমশ বাড়তে থাকে,এর সহজ কার্যপদ্ধতি মানুষের কাছে জনপ্রিয় হয়। যেখানে ভারতে ২০২১ সালের মে মাসে ১০ কোটি সক্রিয় ইউপিআই ব্যবহারকারী ছিলো,ঠিক এক বছর পর অর্থাৎ ২০২২ সালের ডিসেম্বর মাসে রেকর্ড ইউপিআই এর মাধ্যমে টাকা আদানপ্রদান হয়,যার পরিমাণ ছিল ১২ লাখ কোটি টাকা। ওই একই বছরে নভেম্বর মাসেও এই পরিমাণ দাঁড়ায় ১১ লাখ কোটি টাকা।

এই ইউপিআই এর সাথে বর্তমানে আপাতত ৩৮২ টি ব্যাংক যুক্ত আছে। ভারত ছাড়াও নেপাল,ভুটান,মালেশিয়া ইত্যাদি দেশেও এই ইউপিআই ব্যবস্থা চালু আছে। পরবর্তীতে এই সংখ্যায় আরও বাড়বে বলে জানিয়েছে সরকার। ইউপিআই ব্যবস্থা চালু হয় আজ থেকে ৬ বছর আগে অর্থাৎ ২০১৬ সালে।

ইউপিআই (UPI) কি ?

এটি হচ্ছে একটি অনলাইন পেমেন্ট ব্যবস্থা যার মাধ্যমে আপনি আপনার এক বা একাধিক ব্যাংক অ্যাকাউন্টকে একটি স্মার্টফোনের অ্যাপের মধ্যে সীমাবদ্ধ করতে পারবেন এবং সেখান থেকে অনলাইনে ডিজিটাল পদ্ধতিতে অ্যাপের মাধ্যমে টাকা আদান প্রদান করতে পারবেন।

ইউপিআই ব্যবহারের সুবিধা :

বর্তমানে ইউপিআইএর মাধ্যমে মানুষ সহজেই স্মার্টফোনের মাধ্যমে টাকা আদান প্রদান করতে পারছে। হাতে নগদ টাকা না থাকেলও ইউপিআইএর মাধ্যমে সহজেই করা যায় পেমেন্ট । এর অন্যতম সুবিধা হচ্ছে আপনি বছরে ৩৬৫ দিন এবং দিনের ২৪ ঘণ্টা এই সুবিধা ব্যবহার করতে পারবেন। এছাড়াও অনলাইন শপিং,মোবাইল রিচার্জ,ইলেকট্রিক বিল পে,ট্রেন টিকিট বুকিং,সিনেমার টিকিট বুকিং ইত্যাদির পেমেন্ট ইউপিআই এর মাধ্যমে অতি সহজেই করতে পারবেন। এই ক্ষেত্রে আপনার শ্রম এবং সময় উভয় বেচে যাবে।

শেয়ার করুন

Leave a Comment